কুড়িগ্রাম সোমবার, ০৮ মার্চ ২০২১, ০২:১৮ এএম

শিরোনাম
 

অর্থাভাবে থমকে গেছে চিকিৎসা, বাঁচার আকুতি তপনের

প্রকাশিত সময়: জানুয়ারি, ৩০, ২০২১, ০৮:০২ অপরাহ্ণ  

 
 

ফুলবাড়ী প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার কুটি চন্দ্রখানা গ্রামের সেনপাড়া এলাকার স্বর্গীয় মনমোহন সেনের ছেলে তপন সেন। দীর্ঘদিন যাবৎ হোটেল শ্রমিকের কাজ করে কোন রকমে দিনাতিপাত করে আসছেন। সাম্প্রতিক সময়ে তার হার্টের সমস্যা হলে অর্থাভাবে চিকিৎসা করতে না পারায় মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছেন। পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যাক্তির অসুস্থতায় পুরো পরিবার অসহায়।

পরিবারের লোকজন জানান, কিছুদিন আগে তপনের নাক দিয়ে রক্ত আসলে রংপুর মেডিকেলে ডাক্তার দেখাতে যান। সেখানে পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে তার হার্টের সমস্যার কথা বলে উন্নত চিকিৎসার জন্য দ্রুত ঢাকায় যাওয়ার পরামর্শ দেন। পরে পরিবারের লোকজন তাকে ঢাকার ইব্রাহিম কার্ডিয়াক হসপিটাল এন্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউটে নিলে সেখানে ডাক্তার হার্ট অপারেশনের কথা বলেন। এতে দরকার হবে প্রায় ৩ লক্ষ টাকার। যা ভিটেমাটি বিক্রি করেও তাদের পরিবারের পক্ষে জোগার করা সম্ভব নয়। পরে অপারেশন ছাড়াই তাকে বাড়িতে ফেরত নিয়ে আসেন। অর্থের অভাবে বন্ধ হয়ে গেছে চিকিৎসা।

তপন কুড়িগ্রাম সুপার মার্কেটের বগুড়া দধিঘরে কর্মচারী হিসেবে নিযুক্ত ছিলেন। সেখান দধিঘরে কাজ করে যে বেতন পেতেন, তা দিয়ে কোনোরকমে দিন চলে যেত। স্ত্রী ও ৬ বছরের একটি মেয়ে সন্তান সহ কুড়িগ্রামের বৈশ্য পাড়ায় অস্থায়ী ঠিকানা গড়েছেন তপন। গত ১৬/১৭ দিন আগে একটা ছেলে সন্তানও জন্মেছে তার ঘরে। যেটুকু জমানো অর্থ ছিল সেটাও তার স্ত্রীর সন্তান প্রসবের অপারেশনে শেষ হয়ে গেছে। এখন স্বামী-স্ত্রী দুজনই অসুস্থ অবস্থায় বাড়িতে পড়ে আছেন। চিকিৎসা চালিয়ে যাওয়ার মত সামর্থ্য হারিয়ে অসহায় হয়ে পড়েছে পরিবারটি।

‘মানুষ মানুষের জন্য, জীবন জীবনের জন্য।’
তপন বাঁচতে চায়। আসুন তপনকে বাঁচাতে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দেই। একজনের সহযোগিতায় বেঁচে যেতে পারে আরেকজনের জীবন। তপনের চিকিৎসার জন্য সমাজের বিত্তশালী ও দানশীল ব্যক্তিদের কাছে সহায়তা চেয়েছেন তার পরিবার। সহায়তা পাঠাতে তপনের বড় ভাই ভোলা সেনের বিকাশ নম্বর- 01747613596 (পার্সোনাল)৷ প্রয়োজনে তার সাথে যোগাযোগও করতে পারেন এই নম্বরেই।


ট্যাগঃ

   
 
আরও পড়ুন
 
 
Top